Re-reading history & spirit of 7th March

You are here: Home » CRI Junction » Re-reading history & spirit of 7th March

CRI junction, an initiative of Centre for Research and Information, and Bangabandhu Memorial trust are jointly going to arrange a program on ‘7th March and the youth’ at the City’s Bangabandhu Memorial Museum on Friday.

cri-junctionThe program has been arranged to boost up the philosophy and spirit of the historic speech of 7th march among the youth. Some English and Bangla medium high-school going students will participate the program. As guest, Dhaka university vice chancellor Professor AAMS Arefin Siddique, poet Nirmalendu Gun, poet Asad Chowdhury, poet Nurul Huda, novelist Selina Hosen will share their experience and feelings to the juvenile.

From 10:00 am to 11:30 am, participants along with guests will visit the Bangabandhu Memorial Museum. During their visit, guests and eye-witness of March 07, 1971, moment of the historic speech of Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman, will illustrate the feelings of the moment to the youth. By this time, Bangabandhu’s historic speech of March 07, 1971, will be displayed there.

After refreshment, painting competition on and prize distribution will be held.

 

‘কৈশোর চেতনায় জেগে উঠুক ৭ মার্চ’
==========================

সেন্টার ফর রিসার্চ এন্ড ইনফরমেশন (সিআরআই) এবং বঙ্গবন্ধ মেমোরিয়াল ট্রাস্ট এর উদ্যোগে ৭ মার্চ, শুক্রবার, ‘কৈশোর চেতনায় জেগে উঠুক ৭ মার্চ’ শীর্ষক একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। অনুষ্ঠানটি রাজধানীর ‘বঙ্গবন্ধ মেমোরিয়াল মিউজিয়াম’ এ অনুষ্ঠিত হবে।

তারুণ্যের মননে ও নিউরণে ঐতিহাসিক ৭ মার্চ এর দর্শন এবং চেতনা জাগিয়ে তুলতে সিআরআই এর একটি পদক্ষেপ ‘সিআরআই জাংশন’ এ উদ্যোগ নিয়েছে।

ঢাকার বাংলা এবং ইংরেজী মাধ্যমের কয়েকটি উচ্চ-বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের নিয়ে আয়োজিত অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক আআমস আরেফিন সিদ্দিক, কবি নির্মলেন্দ গুণ, কথা সাহিত্যিক সেলিনা হোসেন, কবি আসাদ চৌধুরী এবং কবি নুরুল হুদা।

সকাল ১০টা থেকে ১১:৩০ পর্যন্ত অতিথিদের সাথে ‘বঙ্গবন্ধ মেমোরিয়াল মিউজিয়াম’ প্রদর্শণ করবে অংশগ্রহণকারীরা। এসময় ‘১৯৭১ সালের ৭ মার্চ এর প্রত্যক্ষদর্শী’ এবং অতিথিদের কাছ থেকে সে সময়কার অনুভূতির কথা শুনবে শিক্ষার্থীরা। এসময় বঙ্গবন্ধ শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ মার্চ এর ভাষণটি প্রদর্শণ করা হবে।

এরপর, চিত্রাঙ্কণ প্রতিযোগিতা এবং পুরস্কার বিতরণীর মাধ্যমে অনুষ্ঠানটির পরিসমাপ্তি টানা হবে।

Leave a Reply